প্রতিবেদন
২০১৮ এর মাঝামাঝি আস-সুন্নাহ ফাউন্ডেশন এর কার্যক্রম আরম্ভ হয়। মে ২০১৯ রেজিস্ট্রেশন সম্পন্ন হয়। এর মধ্যে শিক্ষাসেবার অংশ হিসেবে ঢাকার অদুরে ছেলেদের জন্য মাদরাসাতুস সুন্নাহ (বালক) ও মেয়েদের জন্য মাদরাসাতুস সুন্নাহ (বালিকা) নামে দু’টি পৃথক নূরানী কিন্ডার গার্টেন ও হিফজ মাদরাসা প্রতিষ্ঠা ও অত্যন্ত সুচারুরূপে পরিচালনা করছে ফাউন্ডেশন। দ্বীনী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহে শিশুদের জন্য উন্নত সিলেবাসের অনেক অভাব থাকায় ফাউন্ডেশন একটি যুগোপযুগী এবং উন্নত শিশু সিলেবাস তৈরির কাজ আরম্ভ করেছে। দেশের দরিদ্র ও অনগ্রসর জনগোষ্ঠির জন্য স্বাস্থকর ও সুপেয় পানি ব্যবস্থাপনার অংশ হিসেবে এ পর্যন্ত হিসেবে বিভিন্ন জেলায় ৯৯টি সাধারণ ও গভীর নলকূপ স্থাপন করা হয়েছে। উত্তরবঙ্গসহ দেশের বিভিন্ন জেলায় ও বলপূর্বক বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গা নাগরিকদের মাঝে ডিসেম্বর ও জানুয়ারী মাসে ৫৭৮৫টি শীতবস্ত্র বিতরণ করা হয়েছে। রামাদ্বান মাসে দেশের ১৮টি জেলায় ৮৭,৮৮৫ সিয়াম পালনকারীর মাঝে ইফতারের আয়োজন করা হয়েছে। ১০০ গৃহহীন মানুষের মাঝে ঈদবস্ত্র ও মিষ্টান্ন সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। বিভিন্ন জেলার দরিদ্রদের মাঝে খাদ্য বিতরণের অংশ হিসেবে ১২ টন চাউল বিতরণ করা হয়েছে। ফাউন্ডেশনের হীতাকাঙ্ক্ষীদের সহায়তায় ১৯জন মেধাবী এতীম ও অসহায় শিক্ষার্থীদের অভিবাবকত্বসহ যাবতীয় দায়-দায়িত্ব গ্রহণ করা হয়েছে। এছাড়াও ২০০১৮ সালে স্বচ্ছলদের পক্ষ হতে গরীবদের জন্য কুরবানী ছাড়াও সেবামূলক বিভিন্ন উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। দাওয়াতী কাজের অংশ হিসেবে বিদগ্ধ আলিমগনের মাধ্যমে নারী ও পুরুষদের জন্য পৃথকভাবে দৈনিক ও সপ্তাহিক দ্বীনী আলোচনার আসরসহ অনলাইন ও অফলাইন-ভিত্তিক নানা আয়োজন চলমান রয়েছে। দাওয়াহ ও শিক্ষামূলক উন্নত ভিডিও ক্লিপ তৈরির প্রয়োজনে একটি আধুনিক স্টুডিও নির্মান করা হয়েছে এবং তাতে বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা ধারণ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার করা হচ্ছে। মহান আল্লাহ সংশ্লিষ্ট সকলের সব প্রচেষ্টা কবুল করুন এবং আস-সুন্নাহ ফাউন্ডেশনকে মুসলিম উম্মাহ ও বিশ্ব মানবতার জন্য সার্বিক কল্যাণে অগ্রণী ভূমিকা পালন করার তাউফীক দান করুন। আমীন।

আস-সুন্নাহ ফাউন্ডেশন

গভঃ রেজিঃ ‍S-13111/2019